মেয়েরা যেসব দিকে দৃষ্টি দেয় ছেলেদের, জানালেন আলিয়া…

আলিয়া ভাট। বলিউডের উঠতি তারকা। এরই মধ্যে অভিনয় ও সৌন্দর্যের গুণে মুগ্ধ করেছেন সবাইকে। বলিউড অভিষেকের পর থেকে একাধিক নায়কের সঙ্গে প্রেমের গুঞ্জনও শোনা গেছে এই অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে। তবে যে যাই বলুক নিজের ব্যাপারে সব সময় আত্মবিশ্বাসী আলিয়া।

অনেক সময় গণমাধ্যমের সামনে খোলাখুলি মন্তব্য করতেও দেখা গেছে এই অভিনেত্রীকে। জীবনযাপন ও ছেলেদের প্রতি আলিয়ার আকর্ষণও প্রত্যক্ষ করা গেছে। ফ্যাশন্যাবল ও হট তারকা সম্প্রতি গণমাধ্যমকে ছেলেদের যেসব দিকে দৃষ্টি দেয় মেয়েরা এমন ১০টি বিষয় জানিয়েছেন।

তাহলে জেনে নিন বলিউডের জনপ্রিয় এ অভিনেত্রীর কথায় ছেলেদের যেসব দিকে দৃষ্টি দেয় মেয়েরা ….

১. এই অভিনেত্রীর মতে, প্রথমেই মেয়েরা দৃষ্টি দেয় ছেলেদের শরীরের দিকে। অর্থাৎ কেমন ফারফিউম বা গন্ধ ব্যবহার করছে। এটা খুবই প্রয়োজনীয়। একজন পুরুষের দেহের গন্ধ কেমন, তা একজন নারীকে প্রথমেই আকর্ষণ করে।

২. দ্বিতীয়ত ছেলেটাকে কেমন দেখাচ্ছে, ফিটনেস ঠিক আছে কী না? এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। একজন ছেলে কতটা সুন্দর এবং স্মার্ট এগুলো খেয়াল করেন মেয়েরা। এ কারণে ভালো পোশাকের দিকে মনোযোগ দিন।

৩. ডেটিং সব সময় ব্যয়বহুল হবে এমনটা নয়। একটা দারুণ সিনেমা দেখলে বা একটা বার্গার খেলেও অনেক সময় নারীরা সন্তুষ্ট থাকে। সবচেয়ে বড় কথা মেয়েরা আরামদায়ক পোশাকে নিজের মনের মানুষের সঙ্গে সময় কাটাতে চায়, যাকে নিজের মতো করে পাওয়া সম্ভব।

৪. অধিকাংশ মেয়েরা বিশ্বাস করেন যে যেসব পুরুষ মজার নয়, যাদের ‘সেন্স অব হিউমার’ কম, তারা একটু গোমড়া প্রকৃতির হয়।

৫. ছেলেদের বিষয়ে বন্ধুদের মতামতকেও গুরুত্ব দেয় মেয়েরা। স্পাইস গার্লসের একটা গানে বলা হয়েছে, ‘তুমি যদি আমার প্রেমিক হতে চাও তাহলে আমার বন্ধুদের কাছে আসো’। তাই এ দিককেও বিবেচনায় রাখতে হবে ছেলেদের।

৬. মাথা গরমের সময় ছেলেদের ‘রিলাক্স’ থাকতে বলেন মেয়েরা। কিন্তু সেটি অনেক সময় কাজে আসেনা। তাই আপনার মেজাজ নিয়ন্ত্রণের ক্ষমতা কতটুকু সেই বিষয়টিও খেয়াল করেন তারা।

৭. মনোযোগী হওয়া সব সময়েই তোষামোদি আচরণ, আপনি সেটা না চাইলেও। কিন্তু ভালোবাসার ক্ষেত্রে মনোযোগী হলেও তার মানে এই নয় যে, মেয়েরা ‘না’ বললেও সেটা ‘হ্যাঁ’ হয়ে যাবে। ডেটিংয়ের আহ্বানে ‘না’ মানে ‘হ্যাঁ’ হতে পারে না। ছেলেদের এ বিষয়টি খেয়াল করতে হবে।

৮.  সম্পর্কের ক্ষেত্রে সচেতনতা গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করতে হয়। এই দিক দিয়ে ছেলেরা কতটা পারফেক্ট সেই দিকও বিবেচনায় রাখেন মেয়েরা।

৯. গার্লফ্রেন্ড সঙ্গে থাকার পরও ছেলেরা অনেক সময়ই অন্য নারীর দিকে তাকান। এ ক্ষেত্রে লুকোচুরির কোনো সুযোগ নেই। এমনকি সানগ্লাসে চোখ ঢাকলেও তা বোঝা যায়। আর ছেলেদের এ বিষয়টি মেয়েরা বেশি নজরে রাখে।

১০. অনেক সময় কোথাও হারিয়ে গেলে পথের দিশা জিজ্ঞাসা করতে হয়। কিন্তু তার মানে এই নয় যে, আপনার সবকিছুই জেনে নিতে হবে। এ বিষয়ও বিবেচনায় রাখেন মেয়েরা।

(Visited 1 times, 1 visits today)





%d bloggers like this: