৯ই এপ্রিল, ২০২০ ইং, বৃহস্পতিবার

বিজ্ঞান-প্রযুক্তি নিয়ে গবেষণা করে তার ফলাফল দেশের কাজে লাগাতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

আপডেট: মার্চ ৫, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

অনলাইন ডেস্কঃ’গবেষণার জন্য আমরা যে অর্থ ব্যয় করছি তার ফল আমরা কী পেলাম সেটিও দেখতে চাই। সেই ফল দেশের কী কাজে লাগছে সেটিও নিশ্চিত হতে চাই।’

রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে আজ বৃহস্পতিবার (৫ মার্চ) বঙ্গবন্ধু ফেলোশিপ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ফেলোশিপ এবং গবেষণা অনুদান অনুষ্ঠানে এসব বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, গবেষণায় আমরা সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিয়েছি। আমরা চাই আমাদের দেশ এগিয়ে যাক। আর এক্ষেত্রে আমি সব সময় মনে করি গবেষণা সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। তিনি বলেন, যেকোনো দেশের উন্নতির জন্য বিজ্ঞান ও গবেষণা একান্তভাবে অপরিহার্য। গবেষণা ছাড়া আসলে কোনো উন্নতি করা যায় না।

গবেষণায় বিভিন্ন উদ্যোগের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিজ্ঞানমনস্ক জাতি গঠন এবং দক্ষ ও বিশেষ যোগ্যতাসম্পন্ন বিজ্ঞানী, প্রযুক্তিবিদ ও গবেষক তৈরির উদ্দেশ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্মরণে আমরা গঠন করেছি ‘বঙ্গবন্ধু বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ফেলোশিপ ট্রাস্ট’। এই ট্রাস্টের আওতায় প্রতিবছর বিজ্ঞানের বিভিন্ন ক্ষেত্রে দেশে-বিদেশে এমএস, পিএইচডি ও পিএইচডি-উত্তর অধ্যয়ন বা গবেষণার জন্য ফেলোশিপ দেওয়া হচ্ছে।

২০১০-১১ অর্থ-বছর থেকে ২০১৯-২০ অর্থবছর পর্যন্ত ‘বঙ্গবন্ধু বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ফেলোশিপ ট্রাস্ট’ থেকে ৫১৯ জনকে ১৫৫ কোটি ৪৫ লাখ ৫০ হাজার টাকা ফেলোশিপ দেওয়া হয়েছে বলে জানান শেখ হাসিনা। এ ছাড়া বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় থেকে এমফিল, পিএইচডি ও পিএইচডি-উত্তর পর্যায়ে শিক্ষার্থী ও গবেষকদের মধ্যে জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ফেলোশিপ দেওয়ার কথা উল্লেখ করেন তিনি।বিভিন্ন গবেষণা প্রকল্পে সহায়তার কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ফেলোশিপের পাশাপাশি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ে গবেষণা ও উন্নয়ন কাজে উৎসাহ ও সহায়তার লক্ষ্যে গবেষণা প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য বিজ্ঞানী-গবেষকদের মধ্যে গবেষণা অনুদান দেওয়া হচ্ছে। বিজ্ঞান গবেষণায় এ কর্মসূচি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে।

 

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network