১১ই আগস্ট, ২০২০ ইং, মঙ্গলবার

শিরোনাম
আগৈলঝাড়ায় কমিউনিটি ক্লিনিকের স্বাস্থ্য কর্মীর বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ। বরিশালের বিভাগীয় কমিশনার এর উদ্যোগে জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে চারা বিতরন বরিশালে গরু চুরির করে প্রাইভেটকারে পালানোর সময় চোর আটক ভাদ্র মাসের বন্যা নিয়ে সতর্ক থাকতে বললেন প্রধানমন্ত্রী যারা প্রতিহিংসা ছড়িয়েছে তাদের মুখে গণতন্ত্রের কথা ষড়যন্ত্রের অংশ দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থাকে ভেঙে দিয়েছে সরকার : রিজভী ২মিনিট ৫ সেকেন্ডে সব রাজধানী ও ১৪-১৬ সেকেন্ডে সবজেলার নাম বলে(ভিডিও) নতুন রেকর্ড- হাসিব আহম্মেদ ধোবাউড়ায় “বিট পুলিশিং কার্যক্রম” নিয়ে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত গাজীপুরে সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অভিযান চালাচ্ছে টাস্কফোর্স

শনিবার ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন

আপডেট: জানুয়ারি ১০, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

আগামী ১১ জানুয়ারি ২০২০ শনিবার  সারাদেশে ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন ২০২০ পালিত হবে। এ কার্যক্রমের মাধ্যমে ৬ থেকে ১১ মাস বয়সী সকল শিশুদের ১টি নীল রঙের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল এবং ১২ থেকে ৫৯ মাস বয়সী সকল শিশুকে ১টি লাল রঙের ‘এ’ ক্যাপসুল বিনামূল্যে খাওয়ানো হবে।

বৃহস্পতিবার (৯ জানুয়ারি) দুপুরে রাজধানীর গুলশানস্থ ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (নগর ভবন) জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন উপলক্ষে এক সাংবাদিক ওরিয়েন্টেশনের অনুষ্ঠান হয়। এসময় এসব তথ্য জানান ডিএনসিসির প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রি. জেনারেল মো. মোমিনুর রহমান মামুন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আব্দুল হাই।

উক্ত সংবাদ সম্মেলনে আব্দুল হাই বলেন, আগামী শনিবার ১১ (জানুয়ারি) সারাদেশে ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন পালিত হবে। এতে সকলকে অংশ নেয়ার জন্য অনুরোধ করেন তিনি।
তিনি আরও বলেন, শিশুর সুস্থভাবে বেঁচে থাকা, স্বাভাবিক বৃদ্ধি ও দৃষ্টি শক্তির জন্য ভিটামিন ‘এ’ সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ একটি উপাদান। এটি বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করে থাকে।

এবার ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের পাঁচটি অঞ্চলের আওতাধীন ৩৬টি ওয়ার্ডে জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন পরিচালনা করা হবে। মোট কেন্দ্র ১৪৯৯টি। এর মধ্যে স্থায়ী কেন্দ্র ৪৯টি এবং অস্থায়ী কেন্দ্র ১৪৫০টি। এ কাজের জন্য মোট স্বাস্থ্যকর্মী ও স্বেচ্ছাসেবী থাকবে ২৯৯৮ জন।

তাছাড়া, এবার ৬ থেকে ১১ মাস বয়সী শিশুদের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ার লক্ষ্যমাত্রা ঠিক করা হয়েছে ৯০৬২৬টি এবং ১২ মাস থেকে ৫৯ মাস বয়সের শিশুদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ৪৮৯৫৬৪টি।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network