২৭শে মে, ২০২০ ইং, বৃহস্পতিবার

শর্ত সাপেক্ষে রোববার থেকে শুরু হচ্ছে নাটকের শুটিং

আপডেট: মে ১৬, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
অনলাইন ডেস্ক::

শর্ত সাপেক্ষে রোববার থেকে শুরু হচ্ছে টেলিভিশন নাটকের শুটিং। শুক্রবার টেলিভিশন সংশ্লিষ্ট আন্তঃসংগঠনের জরুরি এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন ডিরেক্টরস গিল্ডের সাধারণ সম্পাদক এস এ হক অলিক।
আন্তঃসংগঠনের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, সরকার সাময়িকভাবে লকডাউন শিথিল করেছে, ফলে কিছু সংখ্যক শিল্পী-কলাকুশলী, প্রযোজক নাটক নির্মাণ করার অভিপ্রায় ব্যক্ত করে সংশ্লিষ্ট সংগঠনে অনুরোধ করেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে আন্তঃসংগঠন আগামী ১৭ মে থেকে সংশ্লিষ্ট শুটিং ইউনিট সম্পূর্ণ নিজ দায়িত্বে সরকার এবং আন্তঃসংগঠনের নিয়মকানুন মেনে শুটিং শুরু করার ব্যাপারে সাময়িক শিথিলতা প্রদর্শন করছে। তবে আন্তঃসংগঠন বা স্ব স্ব সংগঠন এর কোনো দায়-দায়িত্ব বহন করবেন না।
 
সংশ্লিষ্টরা নিজ দায়িত্বে শুটিং করার অনুমতি পেলেও তাদের বেশ কিছু শর্ত মেনে শুটিং করতে হবে। শর্তসমূহ গুলো হলো-
১. আন্ত:সংগঠনের পক্ষ থেকে করোনাকালে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের গাইডলাইন অনুসরনে স্বাস্থ্য ঝুঁকি থেকে মুক্ত থাকতে কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। (অবশ্যই পালনীয় শুটিং বিষয়ক স্বাস্থ্যবিধির তথ্যাবলী স্ব স্ব সংগঠন থেকে সংগ্রহ করে সেই নিয়মে শুটিং করতে হবে)
 
২. লকডাউনের সময় সরকারি সংস্থার প্রয়োজনীয় অনুমতি সংগ্রহ করে শুটিং করতে হবে। শিল্পী, কলাকুশলীগণ শুটিং সংশ্লিষ্ট যে কোন ধরনের কাজ নিজ দায়িত্বে সম্পন্ন করবেন। এর সঙ্গে আন্তঃসংগঠন বা স্ব স্ব সংগঠন কোনভাবেই সম্পৃক্ত থাকবে না।
 
৩. শুটিং করতে গিয়ে অনাকাঙ্খিত পরিস্থিতির উদ্ভব হলে, অথবা কেউ অসুস্থ হয়ে পড়লে আন্তঃসংগঠন বা স্ব স্ব সংগঠন কোন দায়-দায়িত্ব গ্রহণ করবেন না। সম্পুর্ন দায় বর্তাবে সংশ্লিষ্ট প্রযোজক, পরিচালক, অভিনয় শিল্পী, চিত্রগ্রাহক, রূপসজ্জা শিল্পীসহ সংশ্লিষ্ট ইউনিটের সবার।
 
৪. বতর্মান করোনা পরিস্থিতি এবং আন্তঃসংগঠনের সিদ্ধান্ত ভালভাবে অবগত হয়ে যারা শুটিং করতে আগ্রহী সেই সকল শিল্পী, কলাকুশলী, প্রযোজক স্ব স্ব সংগঠনের সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক বরাবর এই মর্মে ক্ষুদে বার্তা অথবা ইমেইল পাঠাবেন- (আমি দুর্যোগকালীন সময়ে আন্তঃসংগঠনের সিদ্ধান্ত সম্পর্কে ভালোভাবে অবগত হয়ে নিজ দায়িত্বে স্বেচ্ছায় শুটিং এ অংশগ্রহন করছি। আমি সংকটে নিপতিত হলে এর দায়ভার সম্পূর্ণ ভাবে আমার)
 
৫. সরকার পরিস্থিতি বিবেচনায় যে ঘোষণা দিবেন সকলকে সেটা মেনে নিয়ে কাজ করতে হবে। অথবা কাজ‌ বন্ধ রাখার পরিস্থিতি উদ্ভব হলে তা বন্ধ করতে হবে।
 
৬. আন্ত:সংগঠন এই সিদ্ধান্ত পরিস্থিতি বিবেচনায় যে কোন সময় বাতিল করতে পারেন।
 
আন্তঃসংগঠন সকলের কাজ করার প্রয়োজনীয়তা অনুভব করে। পাশাপাশি এও মনে করে সবকিছুর উর্ধ্বে জীবন। এই মহামূল্যবান জীবনের কাছে সব কিছুই তুচ্ছ বলে আমরা মনে করি। আর তাই বতর্মান সময়ে যেখানে আমরা সঙ্গ নিরোধ অবস্থায় আছি সেখানে অধিক লোকসমাগম স্থানে যাতায়াত কাঙ্খিত হতে পারে না। সেই জন্য আমরা একের অধিক লোক সমাগম ঘটে এমন কাজকে আপাতত নিরুৎসাহিত করছি।
এর আগে ২২-৩১ মার্চ পর্যন্ত সব ধরনের টিভি নাটকের শুটিং বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল সংগঠনগুলো। এরপর কয়েক দফায় সরকারি ছুটির সঙ্গে সমন্বয় রেখে শুটিং বন্ধের সময় বাড়ানো হয়েছে। সবশেষ ১৬ মে পর্যন্ত তা বাড়ানো হয়।
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network