১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে ছাত্রলীগের সংঘর্ষ, সভাপতি-সম্পাদকসহ আহত ১২

আপডেট: জানুয়ারি ৪, ২০২২

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

অনলাইন ডেস্ক:: প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান মঞ্চের সামনে দাঁড়ানো নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়েছে ছাত্রলীগের দুই পক্ষ। এতে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সংসদের সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্যসহ ১০ থেকে ১২ নেতাকর্মী আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

আজ মঙ্গলবার দুপুর ২টার দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে আয়োজিত বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৭৪তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান চলাকালে এ ঘটনা ঘটেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে অপরাজেয় বাংলায় মঞ্চের ডান পাশে দাঁড়ানো নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কবি জসীমউদদীন হল ও ঢাকা কলেজ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের মধ্যে বাগবিতণ্ডা শুরু হয়। এক পর্যায়ে সংঘর্ষে জড়ান দুই পক্ষের নেতাকর্মীরা। পরে চেয়ার ছোড়াছুড়ি ও হাতাহাতি শুরু হলে ছাত্রলীগ সভাপতি জয় ও সাধারণ সম্পাদক লেখক ওখানে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করার চেষ্টা করেন। এক পর্যায়ে মাথায় ইটের আঘাত পান সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য। পরে অন্য নেতাকর্মীরা তাঁকে উদ্ধার করে আগারগাঁওয়ের নিউরোসায়েন্স হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বিকেল ৪টার দিকে ফের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে যোগ দেন তিনি। এ ছাড়া ওই সংঘর্ষে জসীমউদদীন হল ও ঢাকা কলেজের ১০-১২ নেতাকর্মী আহত হন। আহতরা ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা নেন। পরে পরিস্থিতি শান্ত করে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়।

এ বিষয়ে জানতে ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের মন্তব্য পাওয়া যায়নি। তবে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মারধরের শিকার হওয়াকে অশুভ লক্ষণ বলছেন অন্য কেন্দ্রীয় নেতারা। এ নিয়ে সামাজিক মাধ্যমে সরব হয়েছেন তাঁরা।কেন্দ্রীয় সংসদের সহসভাপতি সৈয়দ আরিফ হোসেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে লিখেছেন, ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর মতো অনুষ্ঠানে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে স্বয়ং সাধারণ সম্পাদকের আঘাতপ্রাপ্ত হওয়ার ঘটনা খাটো করে দেখার সুযোগ নেই। এ ঘটনায় সাংগঠনিক ব্যর্থতা এবং চেইন অব কমান্ডের ব্যত্যয় সুস্পষ্ট হয়। এ ঘটনায় জড়িতের বিরুদ্ধে কঠোর সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া জরুরি।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network