১৭ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার

গৌরনদীতে সাড়ে চার বছরের শিশুকে গরম চামচের ছ্যাকা

আপডেট: নভেম্বর ২৬, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
গৌরনদী প্রতিনিধি//গৌরনদী উপজেলার বাদামতলা এলাকায় দুষ্টামি করার অপরাধে সাড়ে চার বছরের এক কন্যা শিশুর গোপনাঙ্গে গরম চামচের ছ্যাকা দেয়ার ঘটনায় বুধবার রাতে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে ঘটনার সাথে জড়িত পাষন্ড মামী শাহনাজ বেগমকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃত শাহনাজ জেলার গৌরনদী উপজেলার বাদামতলা এলাকার রমজান সরদারের স্ত্রী।
স্থানীয়রা জানান, নির্যাতিতা ওই শিশুর মা আখি বেগম অসুস্থ হওয়ার কারনে দ্বিতীয় বিয়ে করে তার (শিশুর) পিতা উপজেলার গোবর্ধন এলাকার বাসিন্দা শফিকুল ইসলাম। দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকে স্ত্রী কন্যার কোন খোঁজখবর রাখছিলো না পিতা শফিকুল। গত তিন বছর যাবত নিঃসন্তানী মামা-মামীর কাছে পালিত হচ্ছিলো শিশুটি।
মামলার বরাত দিয়ে গৌরনদী মডেল থানার ওসি তদন্ত মোঃ তৌহিদুজ্জামান জানান, গৌরনদীর বাদামতলা এলাকায় মামীর কাছে পালিত হওয়া সাড়ে চার বছরের শিশুকে দুষ্টামী করার অপরাধে গত ২১ নভেম্বর সন্ধ্যায় শিশুর গোপনস্থানে গরম চামচের ছ্যাকা দেয় মামী শাহনাজ বেগম। এঘটনায় বুধবার (২৫ নভেম্বর) রাতে শিশুর পিতা শফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করলে ঘটনার সাথে জড়িত শাহনাজ বেগমকে গ্রেপ্তার করা হয়। বৃহস্পতিবার সকালে গ্রেপ্তারকৃতকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network